আজ ২রা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৫ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

image 380060 1609590129

দুই অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেলের শূন্যপদে নিয়োগ শিগগিরই, হচ্ছেন কারা?

প্রথমবার্তা প্রতিবেদক: অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেলের দায়িত্বে থাকা রাষ্ট্রের দুই আইন কর্মকর্তা পদত্যাগের আড়াই মাস অতিবাহিত হলেও এখনও সেই পদে নিয়োগ দেয়া হয়নি। তবে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, খুব শিগগিরই এই দুই পদে নিয়োগ দেয়া হবে।

গত ১১ অক্টোবর অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল মুরাদ রেজা ও মো. মোমতাজ উদ্দিন ফকির পদত্যাগ করেন। সেই থেকে পদ দুটি শূন্য রয়েছে।

আইন মন্ত্রণালয় ও অ্যাটর্নি জেনারেল কার্যালয় সূত্র জানায়, অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেলের দুই শূন্যপদে নিয়োগ দিতে যাচ্ছে সরকার। ইতোমধ্যে সম্ভাব্যদের বায়োডাটা সংগ্রহ করা হয়েছে।

এদিকে অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল পদে নিয়োগ পেতে অনেকেই চেষ্টা করছেন সরকারের ঊর্ধ্বতন মহলে। কারা হচ্ছেন অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল তা নিয়ে জল্পনা-কল্পনা চলছে আইনজীবী মহলেও। গুরুত্বপূর্ণ এই পদ দুটিতে সরকার কাদের নিয়োগ দেবে- এ নিয়ে রয়েছে সবার মাঝে কৌতূহল।

বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের দুজন গুরুত্বপূর্ণ নেতার সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল নিয়োগের ক্ষেত্রে ব্যক্তির আওয়ামী রাজনীতির সঙ্গে সম্পৃক্ততা, সততা এবং আইন পেশায় দক্ষতা- এই তিনটি বিষয়কে গুরুত্ব দিচ্ছেন সংশ্লিষ্টরা।

এদিকে নিয়োগের তালিকায় কয়েকজনের নাম উঠে আসছে আইনজীবীদের বিভিন্ন আলোচনা ও আড্ডায়।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল জানান, অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেলের দুই পদে শিগগিরই নিয়োগ সম্পন্ন হতে যাচ্ছে। সর্বশেষ দুজনের নাম বেশি বেশি শোনা যাচ্ছে। এরা হলেন- সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার মেহদী হাসান চৌধুরী ও অ্যাডভোকেট শেখ মোহাম্মদ মুর্শেদ।

এ ছাড়া অ্যাডভোকেট শেখ আওসাফুর রহমান বুলু, সাবেক ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অ্যাডভোকেট মোতাহার হোসেন সাজু, অ্যাডভোকেট আজহার উল্লাহ ভূঁইয়া, ব্যারিস্টার তানজীব উল আলম, অ্যাডভোকেট শাহ মঞ্জুরুল হক, ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিশ্বজিৎ দেবনাথের নামও আলোচনার রয়েছে।

শেখ মোহাম্মদ মুর্শেদ জানান, অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল হিসেবে নিয়োগ হচ্ছে বলে শুনেছি। তবে এখনও সরকারের সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হয়নি। আমার সিভিটা (বায়োডাটা) মন্ত্রী মহোদয়ের কাছে দিয়ে এসেছি।

জানতে চাইলে অ্যাটর্নি জেনারেল এএম আমিন উদ্দিন বলেন, এ বিষয়ে আমি কিছু জানি না। এটা সরকারের সিদ্ধান্তের বিষয়।

মুরাদ রেজা ২০০৯ সালের ২৭ মার্চ থেকে অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেলের দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। আর মোমতাজ উদ্দিন ওই পদে নিয়োগ পান ২০১০ সালের ৪ জুলাই।

২০০৯ সাল থেকে অ্যাটর্নি জেনারেলের দায়িত্ব পালন করে আসা মাহবুবে আলম ২০২০ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। এরপর গত ৮ অক্টোবর সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি এএম আমিন উদ্দিনকে দেশের ষোড়শ অ্যাটর্নি জেনারেল হিসেবে নিয়োগ দেয় সরকার।

আমিন উদ্দিনের নেতৃত্বে অ্যাটর্নি জেনারেলের কার্যালয়ে এখন অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল আছেন কেবল এমএম মুনীর। এ ছাড়া ৬৭ জন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল এবং ১৫৫ জন সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল মিলিয়ে মোট ২২৪ জন আইন কর্মকর্তা রয়েছেন অ্যাটর্নি জেনারেলের কার্যালয়ে।