আজ ৩০শে চৈত্র, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৩ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

122747images 57

নেতাজির জন্মদিন ঘিরে মোদি-মমতায় ‘প্রতিযোগিতা’

প্রথমবার্তা প্রতিবেদকঃ আজ কলকাতা সরগরম, উপলক্ষ নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসুর ১২৫তম জন্মবার্ষিকী। আর তা কেন্দ্র করেই শ্রদ্ধাজ্ঞাপনে বাঙালি আবেগ জয়ের ‘যুদ্ধে’ নেমেছেন মমতা ব্যানার্জি এবং নরেন্দ্র মোদি।

 

নেতাজির জন্মদিন উপলক্ষে অনুষ্ঠানে যোগ দিতে আজ কলকাতায় আসছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। প্রথমে আলিপুরে জাতীয় গ্রন্থাগার এবং তার পরে ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালে দুটি অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার কথা প্রধানমন্ত্রীর। অন্যদিকে, মমতা আজ দুপুর সোয়া ১২টায় রাজ্যবাসীকে শঙ্খ বাজিয়ে নেতাজির জন্মজয়ন্তী পালনের ডাক দেওয়ার সাথে আয়োজন করেছেন এক বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রার। সেই শোভাযাত্রায় অংশ নেবেন মমতা এবং কলকাতার সুশীল সমাজ।

 

দুই রাজনীতিকের এসব কর্মকাণ্ডকে ‘বিধানসভা ভোটের আগে নেতাজিকে কে কতটা নিজের দেখাতে পারে, এ যেন তার এক প্রতিযোগিতা’ বলে মন্তব্য করেন এক রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞ।

 

কলকাতায় আসার আগেই আজ সকালে ইংরেজির পাশাপাশি বাংলাতেও ট্যুইট করেছেন নরেন্দ্র মোদি৷অন্যদিকে আজ সকালেই ট্যুইট করেছেন মুখ্যমুন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি জানিয়েছেন, নেতাজি স্মরণে রাজারহাটে একটি সৌধ গড়বে রাজ্য সরকার। পাশাপাশি নেতাজির নামে একটি বিশ্ববিদ্যালয় তৈরি করা হবে বলেও জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী।

 

কলকাতায় আসার আগে শুক্রবার রাতে প্রধানমন্ত্রী টুইটারে লেখেন, পশ্চিমবঙ্গের প্রিয় ভাই ও বোনেরা, নেতাজি সুভাষচন্দ্র বোসের জন্মদিনটিতে আপনাদের মধ্যে আসতে পেরে আমি নিজেকে ধন্য মনে করছি। কলকাতায় এই উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে আমরা বীর-কেশরী সুভাষ চন্দ্র বসুকে শ্রদ্ধার্ঘ্য জানাব৷

 

অন্যদিকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় টুইটে জানিয়েছেন, দেশনায়ক নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসুর ১২৫তম জন্মবার্ষিকীতে শ্রদ্ধার্ঘ্য। তিনি একজন প্রকৃত নেতা ছিলেন এবং মানুষের ঐক্যে বিশ্বাস রাখতেন।

 

আমরা আজ এই দিনটাকে দেশনায়ক দিবস হিসেবে উদযাপন করছি। গোটা বছর ধরে এই উদযাপন অনুষ্ঠান চালানোর জন্য রাজ্য সরকার একটি কমিটিও গঠন করেছে।মুখ্যমন্ত্রী আরও জানান, এ বছর প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানও নেতাজিকেই উৎসর্গ করা হবে।