আজ ৮ই বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২১শে এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

112215Untitled 1

বিকেলে শিল্পকলায় শ্রদ্ধা জানানো হবে দিলুকে

প্রথমবার্তা প্রতিবেদকঃ অভিনেতা, নাট্য পরিচালক ও বীর মুক্তিযোদ্ধা মজিবুর রহমান দিলুর প্রতি শেষ শ্রদ্ধা জানাতে তাঁর মরদেহ রাখা হবে শিল্পকলা একাডেমিতে।

 

আজ মঙ্গলবার (১৯ জানুয়ারি) বিকেল ৩টায় সেখানে নেওয়া হবে তাঁর মরদেহ।আজ মঙ্গলবার সকাল ৬টা ৪৫মিনিটে রাজধানী ইউনাইটেড হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেছেন তিনি।

 

দিলুর বড় ভাই অভিনেতা আতাউর রহমান জানিয়েছেন, সকাল ১১টায় দিলুর দীর্ঘদিনের কর্মস্থল শান্ত মারিয়াম ইউনিভার্সিটিতে নেওয়া হবে তাঁর মরদেহ। সেখানে জানাজা শেষে বিকেল ৩টায় বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি প্রাঙ্গণে নেওয়া হবে মরদেহ। শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে বনানী কবরস্থানে দাফন করা হবে তাঁকে।

 

স্কুলে পড়ার সময়ই স্বাধিকার আন্দোলনে সক্রিয় অংশগ্রহণ করেছিলেন দিলু। ঊনসত্তরের গণ-অভ্যুত্থানে যে মিছিলে গুলিতে আসাদ শহীদ হয়েছিলেন সেই মিছিলে ছিলেন তিনিও।

 

১৯৭০ সালে মেট্রিক পরীক্ষা দিয়েই যুদ্ধে চলে যান তিনি। ভারত থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে বাংলাদেশে ফিরে ঢাকায় সরাসরি রণাঙ্গনে ছিলেন তিনি। ওইসময় তিনি ঢাকায় কয়েকটি দুঃসাহসিক অভিযান পরিচালনা করেছিলেন।

 

বিটিভিতে প্রচারিত হুমায়ূন আহমেদের ‘সংশপ্তক’ নাটকে বড় মালু চরিত্রে অভিনয় করে আলোচিত হন মজিবুর রহমান দিলু। অনেকে তাঁকে বড় মালু নামেই চেনেন।

 

এছাড়া বাংলাদেশ টেলিভিশনের জনপ্রিয় নাটক ‘তথাপি’, ‘সময় অসময়’ ও ‘সংশপ্তক’- এ অভিনয়ের মধ্য দিয়ে ব্যাপক পরিচিতি পান দিলু।মঞ্চনাটকেও সক্রিয় ছিলেন এই অভিনেতা।

 

তাঁর উল্লেখযোগ্য হচ্ছে ‘আমি গাধা বলছি’, ‘নানা রঙ্গের দিনগুলি’, ‘জনতার রঙ্গশালা’, ‘নীল পানিয়া’, ‘আরেক ফাল্গুন’, ‘ওমা কী তামাশা’ ইত্যাদি। তিনি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন ঢাকার ড্রামা নামে একটি নাট্যগোষ্ঠী