আজ ২রা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৫ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

023259Oxygen kalerkantho pic

হাসপাতালে মিলবে কম দামে অক্সিজেন

প্রথমবার্তা প্রতিবেদকঃদেশের সব বেসরকারি হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারে রোগীদের দেওয়া অক্সিজেনের মূল্য নির্ধারণ করে দিয়েছে সরকার। পাশাপাশি কভিড-১৯ সম্পর্কিত আরো ১০টি পরীক্ষার ফি নির্ধারণ করে দেওয়া হয়েছে। হাইকোর্টের নির্দেশে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এই ফি নির্ধারণ করে। ফি নির্ধারণের এই তালিকা সংশ্লিষ্ট হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারের উন্মুক্ত স্থানে টাঙাতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (হাসপাতাল ও ক্লিনিকগুলো) ডা. মো. ফরিদ হোসেন মিঞা স্বাক্ষরিত একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়েছে। দেশের সব বেসরকারি হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারের মালিক বা ব্যবস্থাপনা পরিচালককে নির্ধারণ করা নতুন ফি অবিলম্বে কার্যকর করতে বলা হয়েছে।

হিউম্যান রাইটস লইয়ার্স অ্যান্ড সিকিউরিং এনভায়রনমেন্ট সোসাইটি অব বাংলাদেশের কোষাধ্যক্ষ অ্যাডভোকেট মো. শাহ আলমের করা এক রিট আবেদনে হাইকোর্ট ২০১৮ সালের ২৪ জুলাই অন্তর্বর্তীকালীন নির্দেশনা দেন। এরই ধারাবাহিকতায় গত বছর ১৩ ডিসেম্বর হাইকোর্ট এক আদেশে ফি নির্ধারণ করে তা উন্মুক্ত স্থানে টাঙাতে সাত দিনের মধ্যে পদক্ষেপ নিতে নির্দেশ দেন। এ অবস্থায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ফি র্নিধারণ করে তা মেনে চলতে নির্দেশ দিয়েছে।

অক্সিজেনের মূল্য নির্ধারণ : নতুন নির্দেশনায় একক অক্সিজেন সিলিন্ডার ও মেনিফোল্ড অক্সিজেন সিলিন্ডার সিস্টেমে ঘণ্টায় দুই থেকে পাঁচ লিটার অক্সিজেন ব্যবহারে ১০০ টাকা, ছয় থেকে ৯ লিটারের জন্য ১২৫ টাকা, ১০ থেকে ১৫ লিটারের জন্য ১৫০ টাকা মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে।

সেন্ট্রাল অক্সিজেন সিস্টেমে (জেনারেটর বেইজড) ঘণ্টায় দুই থেকে পাঁচ লিটার অক্সিজেন ব্যবহারে ১২০ টাকা, ছয় থেকে ৯ লিটারের জন্য ৩০০ টাকা, ১০ থেকে ১৫ লিটারের জন্য ৩৫০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

সেন্ট্রাল অক্সিজেন সিস্টেমে (লিক্যুইড অক্সিজেন ট্যাংক বেইজড) ঘণ্টায় দুই থেকে পাঁচ লিটার অক্সিজেন ব্যবহারে ১২০ টাকা, ছয় থেকে ৯ লিটার ব্যবহারে ২৫০ টাকা, ১০ থেকে ১৫ লিটারের জন্য ৩০০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। সেন্ট্রাল অক্সিজেন সিস্টেমে হাইফ্লো নেজাল ক্যানুলা দিয়ে ঘণ্টায় ৬০ থেকে ৮০ লিটার অক্সিজেন ব্যবহারে ৫০০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

জরুরি ১০ পরীক্ষার ফি : সিবিসি পরীক্ষার সর্বোচ্চ ফি ধরা হয়েছে ৬০০ টাকা। সর্বনিম্ন ৪০০ টাকা। সিআরপি পরীক্ষার ফি সর্বনিম্ন ৬০০ টাকা, সর্বোচ্চ ৯০০ টাকা। এস.ক্রিয়েটিনিন পরীক্ষার ফি সর্বনিম্ন ৩০০ টাকা, সর্বোচ্চ ৬৫০ টাকা। এস ইলেকট্রোলাইট পরীক্ষার ফি সর্বনিম্ন ৮৫০ টাকা, সর্বোচ্চ এক হাজার ৪৫০ টাকা।

ডি. ডিমার পরীক্ষার ফি সর্বনিম্ন এক হাজার ১০০ টাকা, সর্বোচ্চ তিন হাজার ২০০ টাকা। এস. ফেরিটিন পরীক্ষার সর্বনিম্ন ফি এক হাজার টাকা, সর্বোচ্চ দুই হাজার ২০০ টাকা। এস. প্রকালসিটোনিন পরীক্ষার সর্বনিম্ন ফি এক হাজার ৫০০ টাকা, সর্বোচ্চ সাড়ে চার হাজার টাকা।

সিটি স্কেন (চেস্ট) সর্বনিম্ন পাঁচ হাজার টাকা, সর্বোচ্চ ১৩ হাজার টাকা। চেস্ট এক্স-রে (এ্যানালগ) সর্বনিম্ন ৩০০ টাকা, সর্বোচ্চ ৫০০ টাকা। চেস্ট এক্স-রে (ডিজিটাল) সর্বনিম্ন ৫০০, সর্বোচ্চ ৮০০ টাকা।