আজ ৮ই বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২১শে এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

165059KK merin li pen 1

হিজাব নিষিদ্ধের প্রস্তাব দিলেন ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট প্রার্থী লে পেন

প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:ফ্রান্সের চরম ডানপন্থী নেতা প্রেসিডেন্ট প্রার্থী মেরিন লে পেন, পাবলিক প্লেসে মুসলিম নারীদের হিজাব পরা নিষিদ্ধ করতে প্রস্তাব দিয়েছেন। গত শুক্রবার এক সংবাদ সম্মেলনে হিজাব নিষিদ্ধ করার প্রস্তাব দেন তিনি। আগামী বছর অর্থাৎ ২০২২ সালে ফ্রান্সে প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এ নির্বাচনে মেরিন লে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হলে মুসলিম নারীরা আর হিজাব পরতে পারবেন না বলে ধারণা করা হচ্ছে। সাম্প্রতিক এক সমীক্ষায় দেখা গেছে, বর্তমান প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাখোঁর সমান জনপ্রিয়তা রয়েছে মেরিন লে-এর।

ফ্রান্সের রাজনীতিতে সুপরিচিত মুখ লা পেন। বিগত নির্বাচনেও প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁর সঙ্গে ব্যাপক টক্কর দিয়েছিলেন তিনি। হিজাব নীতি নিয়ে দেশটির আদালতে বিচার বিশ্লেষণের মাধ্যমে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। তবে রায়টি অসাংবিধানিক বলে বাতিলের সম্ভাবনা রয়েছে।

শুক্রবার দেওয়া প্রস্তাবে লা পেন বলেন, আমি মনে করি হিজাব একটি ইসলামি পোশাক। প্রস্তাবিত আইনে ‘ইসলামি মতাদর্শ’ নিষিদ্ধ করার কথা বলা হয়েছে। বার্তা সংস্থা এএফপি জানিয়েছে, লা পেনের এই প্রস্তাবকে তাৎক্ষণিকভাবে চ্যালেঞ্জ জানাবে বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠন এবং অধিকার কর্মী। আর এটা নিশ্চিতভাবেই অসংবিধানিক হিসেবে বাতিল হয়ে যাবে।

২০১৭ সালের ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে মুসলিম বিরোধী ভাষা প্রয়োগ করে ক্ষমতায় যাওয়ার চেষ্টা করেছিলেন লা পেন। কিন্তু তখন রাজনীতিতে নতুন মুখ ম্যাখোঁর কাছে বহু ভোটের ব্যবধানে হেরে বসেন। মনেকরা হচ্ছে আগামী বছরের নির্বাচনকে সামনে রেখে একই ধরনের ভাষার ব্যবহার শুরু করছেন লা পেন।