আজ ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

ইরানের বিরুদ্ধে অস্ত্র নিষেধাজ্ঞা বাড়াতে মরিয়া ট্রাম্প

প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক: যুক্তরাষ্ট্র জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে ইরানের বিরুদ্ধে অস্ত্র নিষেধাজ্ঞা পুর্নবহাল করার প্রস্তাব পাসে ব্যর্থ হলেও দাবি আগামী সপ্তাহের মধ্যেই এই নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ বাড়তে পারে বলে জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এর জের ধরেই রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের ডাকা অনলাইন সম্মেলন যোগ না দেওয়ার ঘোষণাও দিয়েছেন তিনি।

২০১৫ সালে জাতিসংঘের মাধ্যমে অনুমোদিত ইরান ও ছয় জাতিগোষ্ঠীর মধ্যে সই হওয়া পরমাণু সমঝোতার আওতায় আগামী অক্টোবর মাসের মধ্যে তেহরানের ওপর থেকে অস্ত্র নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ার কথা রয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র দুই বছর আগেই পরমাণু সমঝোতা থেকে বেরিয়ে গেলেও দেশটি ইরানবিরোধী নিষেধাজ্ঞা নবায়নের জন্য তৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছে।

নিরাপত্তা পরিষদে যুক্তরাষ্ট্রের এ সংক্রান্ত প্রস্তাবে শুক্রবার অনুষ্ঠিত হয় ভোটাভুটি। এদিন ১১ দেশ ভোট দেওয়া থেকে বিরত থেকেছে; আর প্রস্তাবের পক্ষে ও বিপক্ষে ভোট পড়েছে দু’টি করে। আমেরিকা ও ডোমিনিকান রিপাবলিক প্রস্তাবটির পক্ষে এবং চীন ও রাশিয়া এর বিপক্ষে ভোট দিয়েছে। বাকি কোনও দেশ ভোটাভুটিতে অংশ নেয়নি।

শনিবার এক সংবাদ সম্মেলনে ট্রাম্প বলেন, ভোটের ফলাফল কী হয়েছে, আমরা তা জানি। তবে আমরা নিষেধাজ্ঞা নবায়ন করব, সামনের সপ্তাহেই আপনারা তা দেখতে পারবেন। ট্রাম্পের এমন মন্তব্যের জেরে কূটনীতিকরা বলছেন, এ ধরণের পদক্ষেপে কঠিন যুদ্ধের মুখোমুখি হবে যুক্তরাষ্ট্র।

এদিকে ইরান ইস্যুতে বিরোধ ঠেকাতে জরুরি আলোচনার আহ্বান জানিয়েছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। আলোচনায় যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র, ফ্রান্স, চীন, জার্মানি এবং ইরানকে যোগদান করার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেছেন, আমরা ইরানের সঙ্গে পরমাণু সমঝোতা চুক্তি নিয়ে সম্পূর্ণ শ্রদ্ধাশীল। নিষেধাজ্ঞা বাড়ানো নিয়ে কোন ঝামেলার সৃষ্টি হয় আমরা তা চাই না। আর জের ধরেই অনলাইন ভিডিও আলোচনার আয়োজন করা হয়েছে।