আজ ১৩ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

ভারত-বাংলাদেশ একে অপরের সহায়ক : সেতুমন্ত্রী

প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক: সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, শেখ হাসিনা সরকার কূটনৈতিক দক্ষতা দিয়ে প্রতিবেশী দেশের সাথে বৈরিতার বিপরীতে গড়ে তুলেছে আস্থার সম্পর্ক। ভারত-বাংলাদেশ পারস্পরিক উন্নয়ন এগিয়ে নিতে দুদেশ একে অপরের সহায়ক, তারই ধারাবাহিকতায় ভারতীয় ঋণ কর্মসূচির আওতায় যৌথভাবে বাস্তবায়ন হচ্ছে একাধিক গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্প।

 

আজ রবিবার সকালে ভারতীয় ঋণ কর্মসূচির আওতায় বাস্তবায়নাধীন প্রকল্প এবং অগ্রগতি পর্যালোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন। ওবায়দুল কাদের তার সরকারি বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সভায় যুক্ত হন।এ সময় অনলইন প্ল্যাটফরমে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশে নিযুক্ত  ভারতের বিদায়ী  হাইকমিশনার রীভা গাঙ্গুলি দাস, সড়ক ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব মো. নজরুল ইসলামসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাগণ।

 

বিএনপি দাবি করেছে সরকার নাকি করোনা রোগীদের পরিসংখ্যানে ৮২ হাজার রোগীর নাম বাদ দিয়েছে এ প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, আপনারা এই বাদ দেওয়া ৮২ হাজারের তালিকা দিন। তিনি বিএনপিকে অন্ধকারে ঢিল না ছোঁড়ার আহ্বান জানিয়ে বলেন, চিরাচরিত মিথ্যাচার বিএনপির নিজস্ব রাজনৈতিক সংস্কৃতি।

 

এদিকে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কনিষ্ঠ কন্যা শেখ রেহানার ৬৫তম জন্মদিন উপলক্ষে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের শুভেচ্ছা জানান। এ সময় তিনি বলেন, ৭৫ পরবর্তী দুঃসময় ও সংকটে শেখ রেহেনা পর্দার অন্তরালে থেকে আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীদের পাশে ছিলেন। তিনি বঙ্গবন্ধুর জেষ্ঠ্য কন্যা শেখ হাসিনার বাস্তবে সহযোদ্ধা হিসেবে পর্দার অন্তরালে কাজ করেছেন।

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ক্যাপ্টেন এবি তাজুল ইসলাম(অব.) এমপি বলেছেন, দেশ ও দশের কল্যাণে জননেত্রী শেখ হাসিনা নিরলস প্রটেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। শেখ হাসিনার নান্দনিক নেতৃত্বের কারণে তিনি বণ্বে নেত্রীতে পরিণত হয়েছেন। শেখ হাসিনার নেতৃত্ব আজ বিশ্ব জুড়ে সমাদৃত। আম্ফান, ফণি, বন্যা এবং করোনা মোকাবেলা করে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে বর্তমান সরকার। তিনি বলেন, আমরা তারই জন্মদিন পালন করছি যিনি নেতৃত্বে এসে শুধু বাঙালী জাতির উন্নতির কথাই ভাবেন। নিজের নয় তার মন গণমানুষের কল্যাণের জন্যই কাঁদে। আজ সোমবার ব্রাহ্মণবাড়িয়া বাঞ্ছারামপুর উপজেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত জননেত্রী শেখ হাসিনার ৭৪তম জন্মবার্ষিকীর আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। ক্যাপ্টেন এবি তাজুল ইসলাম অডিটরিয়ামে উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মো. সিরাজুল ইসলামের সভাপতিত্বে সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামী সহ সভাপতি প্রিন্সিপাল আবুল খায়ের দুলাল, উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মো. নূরুল ইসলাম, জেলা যুবলীগ সভাপতি এ্যাড. শাহানুর ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক এ্যাড. সিরাজুল ইসলাম ফেরদৌস, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান জলি আক্তার, ভাইস চেয়ারম্যান সায়েদুল ইসলাম বকুল, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক কবির হোসেন, মাসুদ করিম সাজু, সাংগঠনিক সম্পাদক কাজী জাদিদ আল রহমান জনি, তফাজ্জল হোসেন, সাংস্কৃতিক সম্পাদক এবিএম মাহবুবুর রহমান উজ্জল, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগ সভাপতি মাহমূদুল হাসান ভূইয়া, শ্রমিকলীগ আহ্বায়ক সৈয়দ আঃ আজিজ, উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি জুয়েল আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক আলাউদ্দিন সরকার, পৌর ছাত্রলীগ সভাপতি এমএস রানা, সাধারণ সম্পাদক আঃ রাজ্জাক, কলেজ ছাত্রলীগ সভাপতি জামাল হায়দার, সাধারণ সম্পাদক রুমেল আহমেদ আমান প্রমুখ।