আজ ৩রা কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৯শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

আওয়ামী লীগকে ডিভোর্স দিতে হবে : আলাল

প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:  আওয়ামী লীগকে তালাক না দিলে এ দেশের জনগণের কোনো পরিত্রাণ নাই বলে জানিয়েছেন বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল।

 

তিনি বলেন, চোরদের রাজত্ব থেকে পরিত্রাণ পেতে হলে সিদ্ধান্ত নিতে হবে। আওয়ামী লীগকে ডিভোর্স দিতে হবে।আজ শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের মাওলানা আকরাম খাঁ হলে স্বাধীনতা পরিষদের উদ্যোগে এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

 

আলাল বলেন, আওয়ামী লীগের কত অত্যাচার, অনাচার এর কথা বলব। দেশের প্রধানমন্ত্রী যদি অফিসারদের দুর্নীতি সম্পর্কে বলেন, ‘যে যাই বলুক আপনারা আপনাদের কাজ করে যান’। তাহলে তো চোরদের রাজত্বই চলবে।

 

আলাল আরো বলেন, আওয়ামী লীগের একসময়ের বড় নেতা ছিল, দলের দ্বিতীয় শীর্ষ পদ ছিল তার। নাম না বলি। আওয়ামী লীগের সেই দ্বিতীয় শীর্ষ পদধারী তিনি যুবলীগের এক নেতার বউকে ভাগিয়ে নিয়ে গিয়ে বিয়ে করেন।

 

সেঞ্চুরিয়ান মানিকের কথা তো আমরা সবাই জানি। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে যখন আরেফিন সিদ্দিকী ভিসি ছিলেন তখন আমাদের ছাত্রীদেরকে গণহারে যৌন নির্যাতন করা হয়েছে।

 

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, সাবেক আইজিপি ও সাবেক ভিসি বলেছিলেন, আমাদের কাছে ভিডিও ফুটেজ আছে, অতিশিগগিরই তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। কিন্তু সেই যৌন নির্যাতনকারীদের বিচার কি হয়েছে?

 

তিনি বলেন, ৭ মার্চের জনসভায় শেখ হাসিনা বক্তব্য দেবেন, সেখানে সোনার ছেলেরা দল বেঁধে যাবে আর রাস্তায় যে মেয়েটা আছে তাকে যৌন হয়রানি করবে।

 

সেখানেও আসাদুজ্জামান কামাল (স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী) বললেন, ভিডিও ফুটেজ আছে, আমাদের ট্রাফিক পুলিশরাও সাক্ষী। ওদের আমরা ছাড়বো না। পরে দেখা গেল ‘আমরা এদেরকে ছাড়বো না’ কথাটা হয়ে গেল ‘আমরা এদেরকে ধরবো না’। সুতরাং নারী নির্যাতনের ঐতিহ্য আওয়ামী লীগের আগে থেকেই আছে।

 

স্বাধীনতা ফোরামের সভাপতি আবু নাসের মোহাম্মদ রহমাতুল্লাহর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় ও ভাইস চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদ প্রমুখ।