আজ ১৫ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৩১শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

ট্রাম্পের সংস্পর্শে গিয়েও বাইডেন-কমলা নেগেটিভ, অন্যদের যা হলো

প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সংস্পর্শে গত এক সপ্তাহের মধ্যে যাওয়া ব্যক্তিদের বেশিরভাগই করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হননি।

 

ট্রাম্প ও তার স্ত্রী মেলানিয়া আক্রান্ত হওয়ার পর তাদের সংস্পর্শে যাওয়া ব্যক্তিরা বেশ উদ্বেগে ছিলেন।প্রথমে ট্রাম্পের উপদেষ্টা হপ হাইকস করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হন। এরপর ট্রাম্প ও মেলানিয়া আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হন।

 

 

তবে জো বাইডেন এবং কমলা হ্যারিস করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হননি। তাদের দু’জনের করোনা পরীক্ষার ফল নেগেটিভ এসেছে। এমনকি জো বাইডেনের স্ত্রী করোনা আক্রান্ত নন। কমলা হ্যারিসের স্বামীও এ যাত্রায় আক্রান্ত হননি।

ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স নেগেটিভ, কারেন পেন্স নেগেটিভ। সুপ্রিম কোর্টের নমিনি অ্যামি কোনি ব্যারেট করোনা নেগেটিভ। মাইক পম্পেও আক্রান্ত হননি।

 

অ্যালেক্স আজার করোনা নেগেটিভ। এমনকি জারেদ কুশনারও করোনা নেগেটিভ।তবে সিনেটর মাইক লি এবং সিনেটর থম টিলিস করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন।

 

প্রসঙ্গত, চলতি বছরের ৩ নভেম্বরের মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনকে সামনে রেখে ব্যাপক ব্যস্ত সময় পার করছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। এরই মধ্যে স্ত্রীসহ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন তিনি। জ্যেষ্ঠ উপদেষ্টা হপ হাইকস আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হওয়ার পর তাদের এ ফল আসে।

 

কিন্তু আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হওয়ার আগে গুরুত্বপূর্ণ পদে থাকা বহু মানুষের সংস্পর্শে গেছেন ট্রাম্প। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানিয়েছে, আক্রান্ত ব্যক্তির উপসর্গ প্রকাশ পেতে ১৪ দিন পর্যন্ত সময় লেগে যেতে পারে। এজন্য কোয়ারেন্টিনের সময় ১৪ দিন করা হয়েছে। তবে গড়ে অন্তত পাঁচদিন সময় লাগছে উপসর্গ প্রকাশ পাওয়ার।

 

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত এক সপ্তাহের হিসেব করলেও অনেক গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিবর্গের সঙ্গে দেখা গেছে ট্রাম্পকে।গত ২৬ সেপ্টেম্বর তিনি সুপ্রিম কোর্টের বিচারক হিসেবে অ্যামি কোনি ব্যারেটের নাম ঘোষণা করেন। ওই সময় দুই শতাধিক লোক সেখানে উপস্থিত ছিল।

 

ওইদিনই পেনসিলভানিয়ায় হ্যারিসবার্গ ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্টে একটি র্যালিতে অংশ নেন ট্রাম্প। এদিকে গতকাল বিকেলে জানা যায়, ব্যারেট করোনা পজিটিভ। বেশ কয়েকজন সিনেটরের সংস্পর্শে সম্প্রতি গেছেন তিনি।

 

এদিকে পেনসিলভানিয়ার ওই র্যালিতে অংশ নেওয়া সিনেটর মাইক লি, থম টিলিস করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। আর সামনের সারিতে থাকা ম্যালানিয়া ট্রাম্প তো আক্রান্তের তালিকায় আছেনই।২৭ সেপ্টেম্বর ভার্জিনিয়ায় গলফ খেলেছেন ট্রাম্প। পরে সেনাবাহিনীর সদস্যদের সঙ্গে একটি অনুষ্ঠানে যোগ দেন তিনি।

 

২৮ সেপ্টম্বর হোয়াইট হাউসের রোজ গার্ডেনে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন ট্রাম্প। ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স, স্বাস্থ্যমন্ত্রী অ্যালেক্স আজার, শিক্ষামন্ত্রী  বেটসি ডেভস এবং অন্য গুরুত্বপূর্ণ পদে থাকা লোকজন ওইদিন ট্রাম্পের সঙ্গে ছিলেন।

 

২৯ সেপ্টেম্বর হলো বিতর্কের দিন। জো বাইডেনের সঙ্গে বিতর্কে অংশ নেন ট্রাম্প। পরে ৩০ সেপ্টেম্বর ও ১ অক্টোবর নির্বাচনী প্রচারণা চালানোর কাজে ব্যাপক ব্যস্ত ছিলেন ট্রাম্প। এ সময় বহু মানুষের সংস্পর্শে এসেছেন তিনি।সূত্র : বিবিসি