আজ ৮ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৪শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

অবশেষে গরু পেলেন ৭০ বছর বয়সেও ঘানি টানা ডিমলার সেই বৃদ্ধ সইমুদ্দিন

প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক: অবশেষ গরু পেয়েছেন বৃদ্ধ বয়সে ঘানি টানা সেই দরিদ্র বৃদ্ধ।সংসারের ঘানি তো আছেই আবার গরুর বদলে দীর্ঘ ২০ বছর ধরে নিজেই তেল মারাইয়ের ঘানি(জোয়াল) টানছেন ৭০বছরের বৃদ্ধ সইমুদ্দিন।এ কাজে তাকে সহযোগিতা করে থাকেন তার স্ত্রী নূরুন্নাহার বেগম।

 

দীর্ঘদিনেও বিষয়টি নজরে আসেনি কারোরই। ঘটনাটি ডিমলা উপজলার খালিশা চাপানী ইউনিয়নের ডালিয়া সরকারপাড়ার। মোহাম্মাদ মিশুক আহম্মেদ বর্ষ নামে একটি ফেসবুকের পোস্টের মাধ্যমে অনেকের নজরে আসে তা।এ নিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ প্রচার হলে “সেভ দ্যা হিউম্যান” নামে একটি সামাজিক সংগঠনের কর্মীদের নজরে আসে বিষয়টি।

 

অবশেষে“অঙ্কুর ইন্টারন্যাশনাল”নামে আরেকটি সামাজিক সংগঠনের আর্থিক সহযাগিতায় ওই বৃদ্ধকে একটি গরু উপহার দেয়া হয়।বুধবার(১৪ অক্টোবর)সেভ দ্যা হিউম্যানের কর্মিরা ওই বৃদ্ধর হাতে তুলে দেয় গরুটি।

 

এসময় উপস্থিত ছিলেন,ডিমলা থানার ওসি সিরাজুল ইসলাম,উক্ত ইউনিয়নের ইউপি চেয়ারম্যান আতাউর রহমান,গণমাধ্যমকর্মীরাসহ এলাকা।গরুটি পেয়ে আনন্দে বৃদ্ধ সইমুদ্দিন জানান, আমি ৩৫ বছর যাবত তেলের ব্যবসা করে আসছি।

 

 

প্রায় ১৫ বছর আগে গরুটি মারা গেলে আর গরু কেনার পয়সা না জোটায় ২০ বছর থেকে নিজেই ঘানি টেনে তেল বিক্রি করে সংসার চালাচ্ছি।৩ ছেলে ও ৩ মেয়ের মধ্যে কলেজ পড়ুয়া অবিবাহিত এক মেয়ে রয়েছে বর্তমান তার তার সংসারে। অন্যান্য পাঁচ সন্তানের বিয়ে হয়ে যাওয়ায় তারা নিজ নিজ পরিবার নিয়েই ব্যস্ত।