আজ ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৩০শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

ফ্রান্সে নিস শহরে হামলার শিকার এক মায়ের বেদনাদায়ক আকুতি

প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক: ফ্রান্সের নিস শহরে নটরডেম ব্যাসিলিকায় সন্ত্রাসী হামলায় নিহত হন দুই সন্তানের মা সিমোন ব্যারেটো সিলভা। শরীরে একাধিক ছুরিকাঘাত নিয়ে হাসপাতালে যখন তাকে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছিল, তখন তার শেষ কথা ছিল, ‘আমার সন্তানদের বলে দিও, আমি তাদের ভালোবাসি।’

একই সাথে হামলাকারী ব্রাহিম আওয়িসাওয়ি শিরোচ্ছেদ করে হত্যা করে আরেক নারীকে। এছাড়া নিহত হন ৫৫ বছর বয়সী ভিনসেন্ট।

ফরাসী সরকার আশঙ্কা করছে, এধরণের আরো হামলা হতে পারে ফ্রান্সে।

হামলায় গুরুতর আহত অবস্থায়, কাছের একটি রেস্টুরেন্টে পালিয়ে যেতে সক্ষম হন ৪৪ বছরী বয়সী ব্যারেটো। কিন্তু শেষ পর্যন্ত প্রাণে বাঁচতে পারেননি। মৃত্যুর আগে সন্তানদের উদ্দেশ্যে বলে যাওয়া তার কথাগুলো এখন ভারাক্রান্ত হৃদয়ে স্মরণ করছে গোটা জাতি। হত্যাকাণ্ড নিয়ে চলা তদন্তে বিষয়টি জানা যায়।

তদন্তের অংশ হিসেবে ৪৭ বছর বয়সী এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে ওই ব্যাক্তি হামলাকারী ব্রাহিমের সাথে যোগাযোগ করেছিলেন।

২১ বছর বয়সী ব্রাহিম শরণার্থী, তিউনিসিয়ার নাগরিক। ইউরোপে আশ্রয় নেয়ার উদ্দেশ্যে গত ২০ সেপ্টেম্বর নৌকায় চড়ে ইতালির লাম্পেডুসা দ্বীপে আসেন তিনি। তবে তাকে ইতালি ছাড়ার নির্দেশ দেয় দেশটির সরকার। হামলার মাত্র কয়েক ঘন্টা আগে ট্রেনে চেপে ফ্রান্সের নিস শহরে আসেন তিনি। হামলার পরপরই পুলিশের গুলিতে আহত হন ব্রাহিমি। বর্তমানে তার অবস্থা গুরুতর বলে জানিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

এই হামলাকে ইসলামি সন্ত্রাসী হামলা বলে অভিহিত করেন ফরাসী প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাখোঁ। হামলার সময় চিৎকার করে বারবার আল্লাহু আকবর বলতে শোনা যায় ব্রাহিমিকে। হামলার পর সর্বোচ্চ নিরাপত্তা সতর্কতা জারি করা হয় ফ্রান্সজুড়ে।

সূত্র: স্ট্যান্ডার্ড ডট কো ডট ইউকে।