আজ ১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৮শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

স্ত্রীর নামে সাইনবোর্ড টানিয়ে অগ্রণী ব্যাংকের সেই জমি ফের হাজী সেলিমের দখলে

প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:নৌবাহিনী কর্মকর্তাকে মারধরের জেরে কারাগারে যান সংসদ সদস্য হাজী মোহাম্মদ সেলিমের ছেলে ইরফান সেলিম। এরপরই একের পর এক বেরিয়ে আসে নানা অপরাধের তথ্য। সংসদ সদস্য হাজী সেলিমের দখল অনিয়মের তথ্যও প্রকাশ্যে আসে। ইরফান সেলিমকে গ্রেপ্তারের সময় পুরান ঢাকার মৌলভীবাজারে অগ্রণী ব্যাংকের একটি জমি হাজী সেলিমের দখল থেকে উদ্ধার করেন ব্যাংক কর্তৃপক্ষ। উদ্ধারের কিছুদিন যেতে না যেতেই সেই জমি আবার দখলে নিয়েছেন হাজী সেলিম। সেখানে স্ত্রীর নামে সাইনবোর্ড টানিয়েছেন তিনি। ওই জমিতে অগ্রণী ব্যাংক কর্তৃপক্ষ ভবন নির্মাণের জন্য নির্মাণ সামগ্রী নিয়ে রেখেছিল। পুনরায় দখল করে ওই সামগ্রীও সরিয়ে ফেলেছে হাজী সেলিমের লোকজন।

আবার দখল হলেও ওই জমি নিয়ে কথা বলতেও ভয় পাচ্ছেন ব্যাংক কর্মকর্তারা। তারা সরকারি এই সম্পত্তি উদ্ধারে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সহযোগিতা চাইলেও, কোনো ধরনের সহযোগিতা পাচ্ছেন না বলে অভিযোগ করেছেন।

২০ শতকের এই জমিটি গত কয়েক মাস ধরে সংসদ সদস্য হাজী মোহাম্মদ সেলিম দখল করে রেখেছিলেন। যার বাজার মূল্য শত কোটি টাকা। জমিটি নতুন করে দখলে নেয়ার পর বসিয়েছেন পাহারা। পর্যায়ক্রমে হাজী সেলিমের লোকজন পাহারা দিচ্ছেন। ফলে ব্যাংকের কর্মকর্তা কর্মচারীরা ওই জমির আশেপাশে যেতে পারছেন না। দখল হওয়া জায়গাটি অগ্রণী ব্যাংক সংশ্লিষ্টরা পুনরুদ্ধার করে নির্মাণ কাজ শুরু করেছিলেন। সেই কাজের মালামাল নেই ওখানে। জায়গাটি পুনরুদ্ধার হওয়ার পর নির্মাণ কাজ, নির্মাণ সামগ্রীর বেশ কয়েকটি ছবি রয়েছে এই প্রতিবেদকের হাতে। কিন্তু ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা যায়, এখন এর কিছুই নেই সেখানে। গত পনেরো দিন ধরে কাজও বন্ধ রয়েছে। ব্যাংকের নির্মাণ সামগ্রী সরিয়ে জমিতে স্ত্রীর মালিকানা দাবির সাইনবোর্ড ঝুলিয়ে দিয়েছেন ওই এমপি।

স্থানীয় ব্যবসায়ী আরিফ হোসেন বলেন, জন্মের পর থেকেই অগ্রণী ব্যাংকের এই শাখা আমরা এখানে দেখে আসছি। কিন্তু কার জায়গা আমার জানা নেই। এখন আবার শুনছি এটা হাজী সাহেবের জায়গা। তারা নাকি দখল করেছে এটা।