আজ ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

আবারো হোঁচট খেল রিয়াল মাদ্রিদ

প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:লা লিগায় আবারো পয়েন্ট খোয়ালো রিয়াল মাদ্রিদ। ভিয়ারিয়ালের বিপক্ষে ১-১ গোলে ড্র করলো লস ব্লাঙ্কোরা। একাদশে সুযোগ পেয়ে আবারো রিয়ালের জার্সিতে গোল করেছেন ডিয়াজ। আর ভিয়ারিয়ালের পক্ষে স্কোর জেরার্ড মরেনোর।

জিদানের জন্য দিনটা ছিলো খুব অবাক করা। ইনজুরি আর করোনার কারণে একাদশ সাজাতেই নাভিশ্বাস উঠে যায় তার। বেনজেমা-জোভিচ নেই, রামোসকেও কেড়ে নিয়েছে জার্মানির বিপক্ষের ম্যাচ। বাধ্য হয়ে ইনজুরি আক্রান্ত ভারানেকে নিয়ে বাজি ধরতে হয় জিজুকে।

ফরোয়ার্ড লাইনের অবস্থাটা তো আরো নাজুক। কৌশলের সঙ্গে যায় না বলে যে ডিয়াজকে ব্রাত্য করে রেখেছিলেন, ভরসা রাখতে হয় তার ওপরই। আর সঙ্গী হিসেবে রাখেন মাত্রই সুস্থ হওয়া এডেন হ্যাজার্ডকে।

সিরামিকাতে অবশ্য এতো সুযোগ পেয়েও কাজের কাজটা করতে পারেনি উনাই এমেরি বাহিনী। ম্যাচ শুরু হতে না হতেই গোল খেয়ে বসে ভিয়ারিয়াল। মাদ্রিদিস্তাদের আনন্দে ভাসান ডমিনিকান রিপাবলিকের মরিয়ানো ডিয়াজ। অ্যাসিস্টে ছিলেন কারভাহাল।

গোল খেয়ে কিছুটা নড়েচড়ে বসে স্বাগতিকরা। আক্রমণেও যায় কয়েকবার। তবে, ২০ মিনিটে পাওয়া সুযোগটা ছাড়া গোল করার মতো কোন চান্স পায়নি তারা। এরপরও চেষ্টা করে গেছে বহুবার, কিন্তু কুর্তোয়াকে বোকা বানাতে পারেনি ভিয়ারিয়াল ফরোয়ার্ডরা।

৫০ মিনিটে আবারো সমতায় ফিরবার সুযোগ এসেছিলো স্বাগতিকদের সামনে। কিন্তু জেরার্ড মরেনোর শটটা কুর্তোয়াকে পার করলেও, নিশানা সঠিক ছিলোনা। ফলাফল, আবারো হতাশা।

এক গোলের লিড নিয়েও স্বস্তিতে ছিলোনা রিয়াল মাদ্রিদ। মুহূর্মুহু আক্রমণে তাদের তটস্থ করে রাখে ভিয়ারিয়াল। কিন্তু, ফুটবল বিধাতা সঙ্গে ছিলেন অতিথিদের। কোন না কোনভাবে বেঁচে যেতে থাকে তারা। বাধ্য হয়ে কৌশল বদলান জিদান। অ্যাসেনসিওর সঙ্গে মাঠে নামান ভিনিসিয়াসকে। কিন্তু তাতেও ভাগ্যের খুব বেশি হেরফের হয়নি মাদ্রিদিস্তাদের।

শেষ পর্যন্ত ৭৫ মিনিটে গিয়ে ভাগ্য খুলে যায় ভিয়ারিয়ালের। কুর্তোয়ার ভুলে পেনাল্টি পায় স্বাগতিকরা। তবে, এবার আর ভুল করেন নি জেরার্ড। সমতায় ফেরান দলকে। কপাল পুড়ে রিয়ালের।

গোল খেয়ে আর ম্যাচে ফিরতে পারেনি জিদান শিষ্যরা। অন্যদিকে একের পর এক আক্রমণে এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ এসেছিলো এমেরি বাহিনির কাছে। কিন্তু কোনভাবেই নিশানাবাজি করতে পারেন নি মরেনো। সমতায় শেষ হয় ম্যাচ।