Raj Porimoni

প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক: ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদ, তুহিন সিদ্দিকী অমিসহ তিন জনের বিরুদ্ধে মারধর, বিভিন্ন ধরনের হুমকি ও যৌন হয়রানির মামলায় সাক্ষ্য দিতে আদালতে হাজির হয়েছেন পরীমনি। তার সঙ্গে আছেন শরীফুল রাজও।

মঙ্গলবার (২৯ নভেম্বর) ঢাকার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৯ এর বিচারক মোহাম্মদ হেমায়েত উদ্দিনের আদালতে মামলাটি বাদীর (পরীমনির) সাক্ষ্য গ্রহণের জন্য ধার্য ছিল। এজন্য পরীমনি সকাল সাড়ে ৯টার দিকে আদালতে হাজির হন।

পরীমনির আইনজীবী নীলাঞ্জনা রিফাত (সুরভী) বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।  মামলার অন্য আসামি হলেন শহিদুল আলম। 

এর আগে গত ১৮ মে তিন আসামির বিরুদ্ধে মামলায় চার্জগঠন করে আনুষ্ঠানিকভাবে শুরুর আদেশ দেন। 

গত বছরের ৬ সেপ্টেম্বর মামলায় নাসির, অমি এবং শহিদুল আলম নামে আরেক ব্যক্তিকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট দাখিল করেন তদন্ত কর্মকর্তা সাভার মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) কামাল হোসেন। 

জানা যায়, ২০২১ সালের ১৪ জুন সাভার থানায় ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগে ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিনসহ ছয় জনের বিরুদ্ধে মামলা করেন পরীমনি। মামলার পর অভিযানে নামে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ। ওইদিনই নাসির উদ্দিনসহ ৫ জনকে উত্তরার একটি বাসা থেকে আটক করে ডিবি পুলিশ।